ত্বক ফর্সা করতে বিটরুটের ফেসপ্যাক

0
15

বিটরুট হচ্ছে এমন এক ধরনের ভেষজ একটি উদ্ভিদ যাতে রয়েছে বিভিন্ন ধরনের প্রাকৃতিক উপাদান।  যা আমাদের ত্বক ও স্বাস্থ্যের  জন্য অত্যন্ত উপকারী। বিটরুট এর মূল বা শেকড় এবং পাতা মূলত আমাদের স্বাস্থ্য এবং ত্বকের জন্য ব্যবহৃত হয়।  বিটরুটের রয়েছে কার্বোহাইড্রেট ভিটামিন-এ,সি, প্রোটিন, ক্যালসিয়াম এবং আয়রন সহ নানান প্রাকৃতিক উপাদান। যা ব্যবহার করলে আমাদের ত্বক অতিমাত্রায় উজ্জ্বল এবং ফর্সা হয়ে উঠবে।

বন্ধুরা,  বিটরুটের তৈরি দুটি ফেসপ্যাক আপনাদের সাথে শেয়ার করছি। এ ফেইসপ্যাক গুলো ব্যবহারে আপনাদের ত্বক হয়ে উঠবে অতিমাত্রায় উজ্জল ও ফর্সা ।

বিটরুট এবং চন্দনের গুঁড়াঃ  

ত্বককে অতিমাত্রায় উজ্জ্বল ও ফর্সা করতে বিটরুট এর এই ফেসপ্যাকটি অতীব কার্যকরী এবং গুরুত্বপূর্ণ। মাত্র দুই থেকে তিনবার ব্যবহারেই এটি আপনার ত্বককে অতিরিক্ত উজ্জ্বল ও ফর্সা করে তুলবে। দীর্ঘস্থায়ী ত্বককে উজ্জ্বল ও ফর্সা করতে সপ্তাহে দুইবার এবং মাসে কমপক্ষে ৭/১০ বার এই প্যাকটি ব্যবহার করুন।

2 চা চামচ বিটরুটের রস এবং এক চা-চামচ চন্দনগুঁড়া দুই থেকে তিন ফোঁটা লেবুর রস ভালোভাবে মিশিয়ে নিয়ে তৈরি করে নিন  ত্বক উজ্জল ও ফর্সা করতে বিটরুটের ফেসপ্যাকটি।

ত্বকে ব্যবহারের জন্য উপরে উল্লেখিত ব্যবহার পদ্ধতি সমূহ অনুসরণ করুন। শুষ্ক ত্বকের ক্ষেত্রে এটি ব্যবহারের পর ত্বককে ময়েশ্চারাইজ করে নিবেন।

 বিটরুট এবং মুলতানি মাটিঃ

প্রথমে একটি বিটরুট কেটে ভালো করে ধুয়ে ৫ থেকে ৭ মিনিট সেদ্ধ করুন। এবার সেদ্ধ করা বিটরুট ব্লেন্ডারে দিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিন।।ব্লেন্ড করে  এতে এক টেবিল চামচ মুলতানি মাটি মিশিয়ে ঘন মিশ্রণ তৈরি করুন। এই প্যাক মুখে লাগিয়ে শুকানো পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। এবার ঠান্ডা  পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি তৈলাক্ত ত্বকের তেলতেলে ভাব একবারেই দূর করবে। এবং ত্বককে করে তুলবে উজ্জল ও ফর্সা।

নোটঃ

১। ত্বককে সবসময় ফর্সা রাখার জন্য সপ্তাহে তিনদিন এ ফেইস প্যাক গুলো ব্যবহার করতে পারবেন ।

২। এই প্যাকগুলো কখনোই ফ্রিজে রেখে ব্যবহার করবেন না

 

 

Previous articleখেজুরের উপকারিতা
Next articleবগলের নিচের দুর্গন্ধ দূর করার রেমেড়ি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here